সিএনজি শো-রুম উদ্বোধনের আগেই ভাঙচুর করল বাসমালিক- শ্রমিকরা

85
450

শরীয়তপুরে একটি সিএনজি অটোরিকশার শোরুম উদ্বোধনের আগেই হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর করেছে আন্ত জেলা বাস ও মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়ন ও মালিক পক্ষ। এ সময় শোরুমে থাকা নতুন আটটি সিএনজি ভাঙচুর করেছে তারা। ভাঙচুরের দৃশ্য ধারণ করতে গেলে ডিবিসি টেলিভিশনের শরীয়তপুর প্রতিনিধি বিএম ইশ্রাফিলকে লাঞ্ছিত  করেন হামলা কারীরা। সোমবার দুপুরে জেলা শহরের ট্রাফিক বক্সের পাসে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, শরীয়তপুর পৌর শহরের শহরের কোর্ট বাজারে ব্যবসায়ী রুবেল খান আর,কে মটরস নামে একটি সিএনজি গাড়ির শোরুম চালু করে। সোমবার দুপুরে স্থানীয় এমপি ইকবাল হোসেন অপুর শোরুমটি উদ্বোধনের কথা ছিল । স্থানীয় এমপি ইকবাল হোসেন অপু সিএনজি শোরুমটি উদ্বোধনের আসার আগেই সেখানে হামলা চালায় বাস মালিক ও শ্রমিকরা। এ সময় শোরুমে হামলা চালিয়ে আটটি সিএনজি গাড়ি ভাঙচুর করে। ভাঙচুরের দৃশ্য ধারণ করতে গেলে সাংবাদিক বিএম ইশ্রাফিলকে লাঞ্ছিত করে শ্রমিকরা। পরে সড়কের ওপর বাস ফেলে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয় তারা।

এবিষয়ে আর,কে মটরসের মালিক রুবেল খান বলেন, আমি বৈধভাবে কাগজপত্র নিয়ে সিএনজির শোরুম চালু করেছি। এটির উদ্বোধনের কথা ছিল আমাদের এমপি ইকবাল হোসেন অপু ভাইর। কিন্তু বাস মালিকদের ইন্ধনে আমার শোরুমে হামলা করে আটটি গাড়ি ভাঙচুর করেছে শ্রমিকরা। এসময় এতে আমার অন্ত ২০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

এ বিষয়ে শরীয়তপুর আন্তঃজেলা বাস ও মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি ফারুক চৌকিদার বলেন, শরীয়তপুরে আটোরিকশা ও ছোট গাড়ির জন্য পরিবহন ব্যবসায় লোকসান হচ্ছে। এ অবস্থার মধ্যে শহরে সিএনজি চলাচল শুরু হয়েছে। সেই সঙ্গে সিএনজির শোরুম খোলা হয়েছে। আমরা ওই সিএনজির শোরুম বন্ধের জন্য অনেকবার স্থানীয় প্রশাসনের কাছে যাই। কিন্তু কোনো কাজ হয়নি। ফলে আজ সিএনজির শোরুম উদ্বোধনের খবরে বাস শ্রমিকরা উত্তেজিত হয়ে যায়। তারা ওই শোরুমটি বন্ধ করে দিতে গিয়ে ছিলো।

শরীয়তপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (নড়িয়া সার্কেল) কামরুল হাসান বলেন, এভাবে একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলার ঘটনা কাম্য নয়। এ বিষয়ে কোনো পক্ষই লিখিত অভিযোগ দেয়নি। স্থানীয় এমপি ইকবাল হোসেন অপু দুই পক্ষের সঙ্গে কথা বলেছেন। দুই পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে বিষয়টি সমাধান করবেন।

watch price in bangladesh

85 COMMENTS

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here