কাশ্মীর নিয়ে হস্তক্ষেপের সুযোগ নেই জাতিসংঘের

0
101

১৯৭২ সালের সিমলা চুক্তি অনুযায়ী কাশ্মীর ইস্যু দ্বিপাক্ষিক হওয়ায় তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপের সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুটেরেস। তিনি জম্মু-কাশ্মীরে শান্তি বিঘ্নিত করতে পারে এমন পদক্ষেপ গ্রহণে বিরত থাকতে দুই দেশকেই অনুরোধ করেছেন।

বৃহস্পতিবার জাতিসংঘের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে এ কথা জানানো হয়।

জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিলে কাশ্মীর ইস্যু তোলার কোন পরিকল্পনা মহাসচিবের নেই বলে জানান তার মুখপাত্র স্টিফেন দুজারিক।

জাতিসংঘের মহাসচিবের মুখপাত্র স্টিফেন দুজারিক বলেন,‘১৯৭২ সালের সিমলা চুক্তি অনুযায়ী কাশ্মীর ইস্যু একটি দ্বিপাক্ষিক বিষয়। সেখানে তৃতীয় কারও মধ্যস্থতা করার কোনও সুযোগ নেই। এই চুক্তি অনুযায়ী শান্তিপূর্ণভাবে কাশ্মীর সমস্যা সমাধানের কথা বলা হয়েছে।’

জাতিসংঘ মহাসচিব কাশ্মীর ইস্যুতে সুনির্দিষ্ট কোন পরামর্শ দেননি। তবে ভারত ও পাকিস্তানের উচ্চ পর্যায়ের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে কাশ্মীর ইস্যুতে কথা বলেছেন বলে জানান মুখপাত্র।

মুখপাত্র বলেন, জাতিসংঘ ও মহাসচিব কাশ্মীর ইস্যুতে সৃষ্ট পরিস্থিতি নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রও কাশ্মীর ইস্যু ভারতের ‘অভ্যন্তরীণ বিষয়’ বলে জানিয়েছে।

সোমবার ভারতের রাজ্যসভায় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিল করা হয়। ফলে কাশ্মীর আগে ‘বিশেষ মর্যাদা’র পরিবর্তে বর্তমানে অন্যান্য রাজ্যের মত কেন্দ্রের অধীনে পরিচালিত হবে।

বুধবার পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সভাপতিত্বে একটি বৈঠকে ভারতের সঙ্গে সমস্ত দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যিক সম্পর্ক বাতিল করে।বৈঠকে ভারতের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক আরো কমিয়ে আনার সিদ্ধান্ত হয়।পাশাপাশি ইসলামাবাদে নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূতকে বরখাস্ত করা হয়।

বৃহস্পতিবার জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া ভাষণে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ৩৭০ ধারা বাতিলের কারণে কাশ্মীরে নতুন যুগের সূচনা হবে বলে জানান।

watch price in bangladesh

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here