কাশিমপুর কারাগারে হাজতির বিয়ে

0
64

নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এ বন্দি এক হাজতির বিয়ে দেয়া হয়েছে। আদালতের নির্দেশের গত শনিবার বিকালে কারাগারের অফিস কক্ষে তাদের বিয়ে সম্পূর্ণ হয় বলে কারা কর্তৃপক্ষ নিশ্চিত করেছেন।

বর মো. স্বপন মিয়া গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলা চিনাশুখানিয়া এলাকার আব্দুল হকের ছেলে। কনে আয়শা খাতুন একই এলাকার আব্দুল কাদিরের মেয়ে।

বর ও কনের পরিবারের বরাত দিয়ে কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এর জেলার বাহারুল ইসলাম জানান, প্রায় দুই বছর আগে স্বপনের সঙ্গে একই এলাকার আব্দুল কাদিরের মেয়ে আয়শা খাতুনের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরে তাদের মধ্যে শারীরিক সম্পর্কও হয়। এক পর্যায়ে আয়শা খাতুন গর্ভবর্তী হন এবং এক বছর আগে তার ঘরে ছেলে সন্তান জন্ম নেয়, কিন্তু পরে স্বপন মিয়া তাদের ওই সম্পর্কের বিষয়টি অস্বীকার করেন। উপায় না পেয়ে আয়শা খাতুন শ্রীপুর থানায় মামলা করেন। স্বপন ওই মামলায় গ্রেপ্তারের পর ২০১৮ সালের ১৮ ডিসেম্বর থেকে ওই কারাগারে বন্দি রয়েছেন।

পরে স্বপন আয়শাকে স্ত্রীর মর্যাদা এবং শিশুকে পিতৃত্বের স্বীকৃতি দেয়ার প্রতিশ্রুতিতে ২৮ জানুয়ারি ওই মামলায় উচ্চ আদালত তাদের দুজনের বিয়ের নির্দেশ দেন। স্বপন কারাবন্দি থাকা অবস্থায়ই বিয়ে সম্পন্ন হওয়ার পর বিয়ের প্রমাণপত্র আদালতে পাঠাতে বলা হয়। কাগজপত্র বৃহস্পতিবার এ কারাগারে পৌঁছালে আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী গত শনিবার বিকালে দুই পক্ষের স্বজনদের সম্মতিতে এবং তাদের উপস্থিতিতে কারাগারে ধর্মীয় নিয়মানুযায়ী তাদের বিয়ে সম্পন্ন করা হয়েছে।

গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এর জেলার বাহারুল ইসলাম জানান, বিয়ের সময় বর ও কনের বাবা-মা, এক বছরের ছেলে ও পরিবারের আরো কয়েকজন উপস্থিত ছিলেন। স্থানীয় ৮ নম্বর ওয়ার্ডের কাজী আশরাফুল আলম তাদের বিয়ের মোনাজাত করেন।

watch price in bangladesh

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here