‘আন্তঃবিদ্যালয় চুড়ান্ত ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতা এবং পুরস্কার বিতরন’

0
97

রুম টু রিড একটি আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সংগঠন যা বাংলাদেশসহ বিশ্বের ১৬টি দেশে শিশুদের শিক্ষা সহায়তায় কাজ করে আসছে। সংগঠনটি ২০০৯ সাল থেকে বাংলাদেশের প্রাথমিক শিক্ষাস্তরে মানসম্মত সাক্ষরতা এবং মাধ্যমিক পর্যায়ে মেয়েশিশুদের শিক্ষা ও জীবন-দক্ষতা উন্নয়নে কাজ করছে। মেয়েশিশুদের শিক্ষা সহযোগিতা কার্যক্রমের আওতায় বর্তমানে ২৭টি সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রায় ৫০০০ মেয়েশিশুকে শিক্ষা সহযোগিতা প্রদান করা হচ্ছে।

রুম টু রিড বাংলাদেশ ২০১৬ সাল হতে ঢাকা জেলার ৪টি শিক্ষা থানার মোট ১৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ‘মেয়েশিশুদের শিক্ষা সহযোগিতা কার্যক্রম’ বাস্তবায়ন করে আসছে। এই কার্যক্রমটির মূল লক্ষ্য হলো প্রতিটি মেয়ে শিশু মাধ্যমিক স্তর সম্পন্ন করবে এবং জীবন দক্ষতা শিক্ষার মাধ্যমে জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তগুলো নিতে সক্ষম হবে। শিক্ষা সহযোগিতার পাশাপাশি এই কার্যক্রমটির মাধ্যমে রুম টু রিড মেয়েশিশুদের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহনের মাধ্যমে তাদের সুপ্ত প্রতিভার বিকাশ ঘটাতেও সহায়তা করে থাকে।

আমরা বিশ্বাস করি, কন্যাশিশুরা তাদের উদ্ভাবনী শক্তি দিয়ে সমাজে পরিবর্তন আনছে এবং সকলকে অনুপ্রাণিত করছে। তারই অংশ হিসেবে এ বছর মেয়েশিশুদের খেলাধুলায় সক্রিয় অংশগ্রহনের মাধ্যমে সামনে এগিয়ে যাওয়ার লক্ষ্যে রুম টু রিড-এর ঢাকা ফিল্ড অফিস ১৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মেয়েদের নিয়ে আন্তঃবিদ্যালয় ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। আজ ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২০ (রোববার) ডেমরা থানার অন্তর্ভুক্ত মান্নান হাই স্কুল এন্ড কলেজ এর মাঠে সকাল ৯.০০ থেকে ১.০০ মিনিট পর্যন্ত আন্তঃবিদ্যালয় ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতার চুড়ান্ত প্রতিযোগিতা এবং পুরস্কার বিতরন পর্বটি অনুষ্ঠিত হয়।

জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানটির শুভ সূচনা হয়। এরপর ব্যাডমিন্টন কোর্টে ফিতা কেটে এবং একটি প্রীতি ম্যাচের মাধ্যমে অতিথিগণ টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শাপলা আক্তার, জাতীয় ব্যাডমিন্টন চ্যাম্পিয়ন ২০১৭ এবং রুম টু রিড বাংলাদেশ-এর মেয়েশিশুদের শিক্ষা সহযোগিতা কার্যক্রম এর সিনিয়র প্রোগ্রাম ম্যানেজার রোকসানা সুলতানা। এছাড়াও অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে মান্নান হাই স্কুল এন্ড কলেজ এর ব্যাবস্থাপনা কমিটির সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন । মান্নান হাই স্কুল এন্ড কলেজ এর ব্যাবস্থাপনা কমিটির সভাপতি জনাব গোলাম মোর্শেদ অরুন তার বক্তব্যে মেয়েশিশুদেরকে নিয়ে এই ধরনের প্রতিযোগিতা ও আয়োজন করার জন্য রুম টু রিড বাংলাদেশের ভূয়সী প্রশংসা করেন।। এই আয়োজনে সরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ, শিক্ষানুরাগি এবং ঢাকার ১৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও অভিভাবকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। খেলা শেষে ১৩ টি বিদ্যালয় থেকে আগত মেয়েশিশু, শিক্ষক ও অভিভাবকবৃন্দদের মধ্য থেকে অনেকেই তাদের অনুভূতি প্রকাশ করেন।

টান টান উত্তেজনাপূর্ণ এই প্রতিযোগিতা শেষে বিজয়ের ট্রফি অর্জন করে শহীদ মানিক আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের মেয়েশিশুরা। ১ম রানার্স আপ হয় ডগাইর রুস্তম আলি হাই স্কুল এবং দ্বিতীয় রানার্স আপ হয় এম. এ সাত্তার হাই স্কুল। এছাড়াও খেলা শেষে সকল বিদ্যালয় পর্যায়ে অনুষ্ঠিত ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্টের বিজয়ী মেয়েশিশুদের স্মারক পুরস্কার হিসেবে মেডেল ও ডিকশনারী প্রদান করা হয়।

watch price in bangladesh

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here