ঠাকুরগাঁওয়ের গড়েয়া কেন্দ্রীয় কবরস্থান ও ঈদগাহ জলাবদ্ধতা স্থানীয়দের ক্ষোভ

0
87


হাসিবুল ইসলাম হাসিব, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি : ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার গড়েয়া হাটে পরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থা ও পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় গড়েয়া কেন্দ্রীয় কবর স্থান এবং ঈদগাহ বৃষ্টির ও গড়েয়া হাটের পানিতে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়েছে।কবর স্থান ও ঈদগাহ  কয়েক দিন থেকে পানিতে  ডুবে আছে। একটু বেশি বৃষ্টি হলেই এ জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়।একটি মানুষ মারা গেলে নেই তার কবর দেওয়ার জায়গা।

শত শত বছরের ঐতিহাসিক গোরস্থান টি প্রায় আট একর জায়গায় অবস্থিত। সরকারি ও জেলা পরিষদ বরাদ্দে গোরস্থানের উত্তর দিকে পাঁকা বাউন্ডারি করা হয়েছে। গোরস্থানের কাজ এখনো চলমান রয়েছে।

গড়েয়া হাটের পানি নিষ্কাশনের সঠিক পরিকল্পিত ব্যবস্থা না থাকায় গোরস্থানে হাটের ড্রেনের দুইটি মুখ কবর স্থানে সংযোগ থাকায় সম্পূর্ণ হাটের পানিতে ডুবে আছে গড়েয়া হাটের কবরস্থান টি ও এর সাথে উত্তর পাশে ঈদগাহ টি এতে করে গড়েয়া এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের ক্ষোভ প্রকাশ করে।

এবিষয়ে গড়েয়া ইউ পি চেয়ারম্যান রেজওনুয়াল ইসলাম রেদ জানান, এ জলাবদ্ধতা দেখিছি, আমরা আগেই এটার কাজ শুরু করেছি,কাজ চলছে, বলে ব্যস্ততা দেখিয়ে বিস্তারিত কিছু বলেনি।

এ দিকে স্থানীয় এলাকাবাসীরা সাংবাদিকদের জানান, গড়েয়া হাটের হাফেজিয়া মাদ্রাসা হয়ে গড়েয়া ইউপি চেয়ারম্যান এর মাধ্যমে একটি সরকারি ড্রেনের কাজ হচ্ছিলো কিন্তু কি কারনে কাজটি বন্ধ রাখা হয়েছে তা আমি বা আমরা জানিনা তবে ঐ ড্রেনটির অসমাপ্ত কাজটি যদি সমাপ্ত করা হতো তাহলে আমাদের ধারনা এ জলাবদ্ধতা থেকে সাধারন জনগণ মুক্তি পাবে।

এবিষয়ে সেচ্ছাসেবী সংগঠন “গড়েয়া সমাজ” এর সভাপতি এনামুল ইসলাম শান্ত বলেন, এটি শতবৎসরের ৮ একর জমি নিয়ে কবরস্থান, হাটের ড্রেনের দুইটি মুখ কবর স্থানে সংযোগ থাকায় সম্পূর্ণ হাটের পানি এখানে এসে কবরস্থান ও ঈদগাহ জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়। তিনি উর্দ্ধতন কর্মকর্তা ও প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ণন করে বলের এর যেন স্থায়ী সমাধান করেন।তিনি আরও বলেন, কিছুদিন আগে সাবেক এক মেম্বার কে কবর দিয়ে যাওয়ার একটু পরই কবরটি ভেঙ্গে যায়। এমন হলে কবর দেয়াটা দুষ্কর হয়ে যাবে।

এছাড়াও দল মত নির্বিশেষে , ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক, ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও স্থানীয় জন প্রতিনিধি এবং হাট ইজারাদার সহ সকলের কাছে দ্রুত একটি স্থায়ী সমাধানের দাবি জানান গড়েয়ার ধর্ম প্রাণ মুসলমান গণ।

watch price in bangladesh

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here